মোবাইলে বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২২

Rate this post

মোবাইলে বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়মঃ আস্সালামু আলাইকুম, মোবাইলে বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম (create Bkash account with mobile) পোষ্টে আপনাদের স্বাগত্বম। আজকের লেখাটি পড়ে আপনারা মাত্র ৫ মিনিটে ঘরে বসে নিজে নিজে মোবাইলে নতুন বিকাশ একাউন্ট খোলতে পাড়বেন। আর একাউন্ট খোলার জন্য বিকাশে ১০০ টাকা ফ্রি পাবেন। তাহলে চলুন জেনে নেওয়া যাক bkash খোলার নিয়ম

bKash হলো বাংলাদেশের মোবাইল ব্যাংকিং একটি সেবা। বিকাশ দিয়ে একজন গ্রাহকের একাউন্ট থেকে অন্য গ্রহকের অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাতে বা গ্রহন করতে পারেন। তাছাড়াও বিকাশ দ্বারা গ্রহকগন বিদ্যুৎ বিল, ডিসকো বিল এবং শপিংসহ নানা সুবিধা গ্রহন করেন। এটি একটি ব্র্যাক ব্যাংক, যা বিশ্ব ব্যাংক এর অর্ন্তগত আর্ন্তজাতীক ফিনান্স সংস্থা।

বিকাশ একাউন্ট খুলতে কি লাগে ?

বিকাশ একাউন্ট খোলা একম সহজ ব্যাপার। কিভাবে বিকাশ একাউন্ট খুলব জানতে পুরু লেখাটা মনোযোগ দিয়ে পড়ুন। আপনি বিকাশ এপ দিয়ে সহজেই নিজে নিজে বিকাশ একাউন্ট খোলতে পারবেন। এর জন্য প্রয়োজন হবে –

  • আপনার এন আই ডি কার্ড প্রয়োজন হবে। (অনলাইন কপি দিয়েও বিকাশ একাউন্ট খোলতে পারবেন)
  • একটি একটিভ মোবাইল নাম্বার দরকার হবে।
  • বিকাশ একাউন্ট খোলার জন্য একটি এন্ড্রয়েড মোবাইল ফোন লাগবে এবং ইন্টারনেট কানেকশানের প্রয়োজন হবে।
  • একাউন্ট খোলার সময় যার এন আইডি কার্ড দ্বারা একাউন্ট তৈরি করবেন তাকে সাথে সাথে রাখতে হবে।

বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

মোবাইলে বিকাশ এপ দিয়ে পার্সোনাল একাউন্ট তৈরি করার খুবই সিম্পল। নিচের নিয়মানুসারে বিকাশ এপটি ডাউনলোড করে একাউন্ট করলেই সাথে বিকাশে ১০০ টাকা ফ্রি পাবেন। নতুন বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং বিকাশ বোনাস পাওয়ার জন্য নিচের ধাপগুলো অনুসরন করুন।

ধাপ- ১ঃ বিকাশ অ্যাপ ইনস্টল এবং ১০০ টাকা ফ্রি

নিজে নিজে মোবেইল দিয়ে বিকাশ একাউন্ট খোলার জন্য আপনাকে বিকাশ অ্যাপ টি ডাউনলোড করতে হবে। নতুন একাউন্ট খোলার জন্য আপনি পাবেন ১০০ টাকা বোনাস। নিচের লিংক থেকে Bkash app ডাউনলোড করে আপনার এন্ড্রয়েড ফোনটিতে ইনস্টল করুন।
আপনার মোবাইল বিকাশ এপ টি – ইনস্টল করুন

ধাপ- ২ঃ বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম

Bkash খোলার নিয়ম: বিকাশ অ্যাপ দিয়ে পার্সোনাল একাউন্ট তৈরি করা একদম সহজ। বিকাশ এপ আপনার ফোনে ইনস্টল করার পর ওপেন করবেন। তার আগে আপনার এন্ড্রয়েড ফোনটিতে ইন্টারনেট কানেকশান দিবেন। এখন আপনি নিচের স্টেপগুলো ফলো করে বিকাশ একাউন্ট খোলোন।
১। বিকাশ অ্যাপ টি অপেন করার পর উপরের ১ নং চিত্রের মতো একটি এন্টারফেজ ওপেন হবে। সেখানে লগ ইন/রেজিস্টেশন বাটনটিতে ক্লিক করবেন।
২। লগ ইন/রেজিস্ট্রেশন বাটনে ক্লিক করার পর আপনাকে উপরের ২ নং চিত্রের মতো পাতায় নিয়ে আপসবে। সেখানে যে নাম্বারটি দিয়ে বিকাশ অ্যাকাউন্ট খোলতে চাচ্ছেন সেই নাম্বারটি দিয়ে পরবর্তী বাটনে চাপ দিবেন।
৩। তারপর আপনার মোবাইল নাম্বারটি কোন অপারেট তা সিলেক্ট করবেন। সিলেক্ট করে আবার পরবর্তী বাটনে ক্লিক করবেন।
৪। আপানার মোবাইল নাম্বারটি যাচাই করার জন্য আপনার নাম্বারে একটি ওটিপি পাঠানো হবে। অবশ্যই আপনার মোবাইল নাম্বারটি ফোনে এক্টিভ করা থাকতে হবে। ওটিপি মেসেজিটি আসার সাথে সাথেই অটোমেটিক বিকাশ এপ গ্রহন করে নিবে। ৪ নং চিত্রের মতো, কনফার্ম করুন এ ক্লিক করবেন।
বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম
৫। তারপর ৫ নং চিত্রের মতো পাতায় আসার পর আপনাকে জাতীয় পরিচয় পত্র বা এ আই ডি কার্ড এর উপরের পৃষ্টার ছবি তুলে সাবমিট করতে হবে।
৬। এরপর জাতীয় পরিচয় পত্রের অপর পৃষ্টার ছবি তুলে ‘সাবমিট করুন’ বাটনে ক্লিক করতে হবে।
৭। আপনার নিজের ছবি অর্থাৎ যার এন আইডি কার্ড তার মুখের ছবি মোবাইলের ফ্রন্ট ক্যামেরা দিয়ে তুলে ‘তির’ বাটনে চাপতে হবে।
৮। চেহারার ছবি তুলে সাবমিট করে দিলেই আপনার একাউন্ট খোলা হয়ে যাবে।

ধাপ- ৩ঃ বিকাশ একাউন্ট খোলার পর যা যা করবেন:

বিকাশ একাউন্ট খোলার পর একাউন্ট এক্টিভ হতে কিছুক্ষন সময় লাগবে। আপনার মোবাইল নাম্বারে কয়েকটি এস এম এস আসবে। সেখানে বলা হবে আপনার বিকাশ পিন সেট করার জন্য। এস এম এস আসার পর যা যা করবেন তা হলো:
  1. বিকাশ খোলার পর প্রথমে *২৪৭# ডায়াল করুন।
  2. Active menu pin অফশন আসবে সেখানে ১ টাইপ করে রিপ্লে দিবেন।
  3. তারপর আপনার বিকাশের জন্য একটি ৫ সংখ্যার পাসওয়ার্ড দিতে হবে। আবার ঐ ৫ সংখ্যার কনফার্ম পাসওয়ার্ড দিতে হবে।
  4. পাসওয়ার্ড সেট করলেই আপনার একাউন্ট এক্টিভ হয়ে যাবে।
বিকাশে ১০০ টাকা ফ্রি বোনাস পাওয়ার জন্য বিকাশ অ্যাপ এ লগ ইন করতে হবে। অ্যাপ এ লগ ইন করে যেকোনো নাম্বারে ২৫ টাকা রিচার্জ নিলেই আরও পাবেন ৫০ টাকা ক্যাশব্যাক।
বিকাশ নিয়ে কিছু প্রশ্ন এবং উত্তর
প্রশ্ন- ১ঃ একটি nid card দিয়ে কয়টি বিকাশ একাউন্ট খোলা যায়?
উত্তর: একটি এন আই ডি কার্ড দিয়ে আপনি একটি বিকাশ খোলতে পারবেন।
প্রশ্ন- ২ঃ বিকাশ একাউন্ট এন আই ডি কার্ড অনলাইন কপি দিয়ে খোলা যাবে কি?
উত্তর: অবশ্যই আপনি খোলতে পারবেন। যদি আপনার ১৮ বছর হয়ে তবে জাতীয় পরিচয় পত্রের অনলাইন কপি দিয়ে বিকাশ খোলতে পারবেন।
প্রশ্ন-৩ঃ বিকাশ এপ দিয়ে টাকা আয় করা যায় কি?
উত্তর: হ্যা, বিকাশ এপ আপনার বন্ধুদের সাথে রেফার করে টাকা আয় করতে পারবেন।
প্রশ্ন- ৪ঃ বিকাশ কাস্টমার কেয়ার নাম্বার কত?
উত্তর: ১৬২৪৭ বা ০২-৫৫৬৬৩০০১। বিকাশ কাস্টমার কেয়ার বিস্তারিত পড়ুন।
প্রশ্ন- ৫ঃ বিকাশ একাউন্ট চেক কোড কত?
উত্তর: *২৪৭#

মোবাইলে বিকাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম পোষ্টটি পড়ে আশা করি আপনারা নিজে নিজে বিকাশ একাউন্ট খোলাতে পারবেন। bkash খোলার নিয়ম ও তার সাথে বিকাশে ১০০ টাকা ফ্রি নিতে পারবেন।

About bdtoppost

Check Also

কষ্টের পিক - koster pic in Bangla

কষ্টের পিক ২০২২ – koster pic in Bangla

koster pic বা কষ্টের পিক নামক আজকের আর্টিকেলে আমরা বেশ কয়েকটি কষ্টের পিকচার সম্মেলিত ছবি নিয়ে আলোচনা করবো বা তুলে ধরবো, যাতে করে সম্ভাব্য পাঠকগণ উপকৃত হতে পারে। আজকের আর্টিকেলে আমরা বিশেষ করে কোনো একটি ঘটনা বা বিষয়কে কেন্দ্র না করেই সবগুলো ঘটনাকে কেন্দ্র করেই নানা ধরনের কষ্টের পিকচার তুলে ধরেছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.