অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত

ছাত্রাবস্থায় আমরা প্রায় সবাই অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত বা আবেদনক লিখেছি। কেনেনা পড়ালেখার প্রেসার কিংবা নানা কারণে বিদ্যালয়ে যখন আসতে না পেরে থাকি, ঠিক এর পরদিন বিদ্যালয়ে যাওয়ার সময় একটি অনুপস্থিতির জন্য সুন্দর ও সঠিকভাবে দরখাস্ত বা আবেদন নিয়ে যেতে হয়। আর তারই ধারাবাহিকতায় আজকের আর্টিকেলে আমরা জানার চেষ্টা করবো একজন শিক্ষার্থী কিভাবে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিতির থাকার কারণে প্রধান শিক্ষকেরে নিকট একটি আবেদন লিখতে হয় তার নমুনা অথবা ফরম্যাট। ( বেতন মওকুফের জন্য আবেদন লিখ এবং একইসাথে অসুস্থ্যতার জন্য ছুটির আবেদন লিখ )

আমরা যারা যারা শিক্ষার্থী রয়েছি, তাদের প্রায় সবাইকে স্কুল জীবনে কোনো না কোনো দিন স্কুল বা ক্লাস মিস করতে হয়। আর যেই কারণে প্রধান শিক্ষক কিংবা ক্লাসের শিক্ষক হতে প্রথমে ছুটি নিতে হয় বা পরে তাদের নিকট হতে ছুটি নিয়ে নিতে হয়। কিন্তু উক্ত ঘটনাকে কেন্দ্র করেই আমাদের ক্লাস ও পরীক্ষায় একটি আবেদন চালু হয়েছে। আর সেটি হলো অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত বা আবেদন। যদিও বিশেষ করে আমরা এই দরখাস্ত শুধুমাত্র পরীক্ষায় উত্তর করার জন্যই পড়ে থাকি ও মুখস্থ করে থাকি। বাস্তবিক অর্থে উক্ত দরখাস্তটি আমরা আমাদের শিক্ষা বা স্কুল জীবনেও ব্যবহার করতে পারি। যখন আমরা আমাদের বিদ্যালয়ে নানা কারণে হঠাৎ না এসে অনুপস্থিতির খাতায় নাম লিখিয়ে ফেলি, তখন যদি প্রধান শিক্ষক কিংবা ক্লাস শিক্ষকের নিকট দরখাস্তটি জমা দিই, তাহলে আমাদের শাস্তি পাওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়। আর এই কারণেই মূলত আমরা যদি বিদ্যালয়ে না যেতে পারি, তখন অনুপস্থিতি চেয়ে একটি আবেদন লিখি। আশা করি আজকের আর্টিকেল তথা অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত নামক আর্টিকেলটি দ্ধারা শিক্ষার্থীরা বেশ ভালোভাবে উপকৃত হবে। ( জরিমানা মওকুফের জন্য আবেদন লিখ এবং ভর্তি হওয়ার জন্য শিক্ষকের নিকট আবেদন লিখ )

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত লিখার সঠিক নিয়ম

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত লিখার সঠিক নিয়ম

বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থাকার জন্য আবেদন পত্র | school absence letter in Bengali: অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত লিখার সঠিক নিয়মটি হলো-

২৫.১১.২০২১

বরাবর

প্রধান শিক্ষক

কাদুটি উচ্চ বিদ্যালয়

কাদুটি, চান্দিনা, কুমিল্লা

বিষয়: অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত।

জনাব,

সবিনয় নিবেদন এই যে, আমি আপনার উক্ত বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণির মানবিক বিভাগের একজন নিয়মিত ও বাধ্যগত ছাত্র। কিন্তু আমি গত ২১.১১.২০২১ থেকে ২৩.১১.২০২১ ইং পর্যন্ত বিদ্যালয়ে উপস্থিত হতে পারি নি। এই সময়ে আমার প্রচন্ড পেট ব্যথা ছিল। যে বিধায় আমাকে হসপিটালেও যেতে হয়েছে। এখন সম্পূর্ণভাবে ট্রিটমেন্ট নেওয়া পর কিছুটা সুস্থ্য। যে কারণে আজকে থেকে পুনরায় নিয়মিতভাবে শ্রেণিকক্ষে ক্লাস করতে চাচ্ছি।

সুতরাং স্যারের নিকট আমার আকুল আবেদন এই যে, উপরে উল্লেখিত বিষয়টিকে বিবেচনা করে উক্ত ৩ দিনের ছটি দিয়ে বাধিত করিবেন। আমাকে যদি আপনি উল্লেখিত তারিখগুলোতে ছুটি দিয়ে থাকেন, তাহলে আপনার নিকট আমি কৃতজ্ঞ থাকিব।

নিবেদক

মো: ইকরামুল হক

দশম শ্রেণি, রোলনং-০৩

উপরে উল্লেখিত দরখাস্তটি কিংবা আবেদনটি হলো মূলত একজন শিক্ষার্থীর ছুটিকে কেন্দ্র করেই। তবে বর্তমানে এই দরখাস্তটি ক্লাস পরীক্ষাসহ পাবলিক পরীক্ষায়ও এসে থাকে। তাই যদি কোনো শিক্ষার্থী পরীক্ষার জন্য কিংবা এমনিতে ক্লাসে অনুপস্থিতির জন্য প্রধান শিক্ষকের নিকট আবেদন করতে চায়, তাহলে উক্ত আবেদনের ফরম্যাটটি দ্ধারা সে বেশ ভালোভাবে উপকৃত হবে।

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত নিয়ে শেষ কথা

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত নিয়ে শেষ কথা

যেহেতু আজকের আর্টিকেলে মূল বিষয় ছিল কিভাবে একজন ছাত্র তাঁর বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের নিকট অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত করবে সে বিষয়ে, তাই সম্পূর্ণ আর্টিকেল জুড়ে সেই বিষয়েই আলোচনার পাশাপাশি একটি দরখাস্তের ফরম্যাটও দিয়েছি। আমারা যারা শিক্ষার্থী আছি, তাদের প্রায় সবাইকেই মাঝে মাঝে বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থাকতে হয় নানা কারণে। আর সেই ক্ষেত্রে পরোক্ষণে প্রধা শিক্ষকের নিকট কিংবা ক্লাস শিক্ষকের নিকট দরখাস্তের মাধ্যমে অনুপস্থিতির সেই ছুটি নিয়ে নিতে হয়। অন্যথায় মাঝে মাঝে আমাদেরকে শাস্তির আওতায় নিয়ে আসা হয়। এছাড়াও আমাদের পরীক্ষায়ও উক্ত আবেদনটি এসে থাকে। যদি আমরা অনুপস্থিতির জন্য আবেদনপত্রটি মনে রাখতে পারি, তখন পরীক্ষায় খুব সহজেই উক্ত দরখাস্তটি লিখতে পারবো। তাই পরিশেষে বলা চলে যে, আজকের আর্টিকেল তথা  অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত দ্ধারা শিক্ষার্থীরা বেশ ভালোভাবে উপকৃত হতে পারবে।

অনুপস্থিতির জন্য দরখাস্ত সম্পর্কে আরো জানতে

About রবীন্দ্র

Check Also

স্বাধীন বাংলাদেশের পরিচিত

স্বাধীন বাংলাদেশের পরিচিত

স্বাধীন বাংলাদেশের পরিচিত সুপ্রাচীন ঐতিহ্যের অধিকারী আমাদের এ বাংলাদেশ। বাংলাদেশ নামে স্বাধীন ও সার্বভোম রাষ্ট্র …

Leave a Reply

Your email address will not be published.